ট্রাফিক জ্যাম এড়াতে আসছে উড়ন্ত ট্যাক্সি

এয়ারবাসের ফ্লাইং ট্যাক্সি ধারণাকে আরো আধুনিক করার উদ্যোগ নিয়েছে জার্মান গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান অডি। অর্ধেক গাড়ি ও অর্ধেক ড্রোন হতে চলেছে ভবিষ্যতের ট্যাক্সি। ইতালির ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি ইটালোডিজাইন যৌথভাবে এই ড্রোন ট্যাক্সি তৈরির কাজে এগিয়ে এসেছে। ঢাকার মতো বিশ্বের মেগাসিটিগুলোতে ট্রাফিক জ্যাম এড়াতে এ ধরণের উড়ন্ত ট্যাক্সির কথা ভাবছে সংশ্লিষ্টরা।

জার্মান গাড়ি নির্মাতা কোম্পানি অডি এমন এক ট্যাক্সি তৈরি করতে যাচ্ছে, যা স্বয়ংক্রিয়ভাবে যাত্রীকে রাস্তায় যেমন এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় নিয়ে যাবে, তেমনি আকাশ পথে উড়েও গন্তব্যে নিয়ে যেতে পারবে।

একবার ব্যাটারি চার্জ করার পর ট্যাক্সিটি ঘণ্টায় ১০০ কিলোমিটার বেগে ১৩০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিতে পারবে। ক্যাপসুল আকৃতির এ ট্যাক্সিটি যাত্রীদের চেহারা শনাক্ত করবে, ডিসপ্লেতে রাস্তার পরিস্থিতি জানিয়ে দেবে। বেশি যানজটে পড়লে যাত্রীরা বাহনটিকে বলতে পারবে আকাশে উড়িয়ে নেয়ার কথা। গন্তব্যে যাত্রীকে পৌঁছে দিয়ে বাহনটি নির্দিষ্ট রিচার্জ স্টেশনে গিয়ে দাঁড়াবে। সেখান থেকে আবার নতুন যাত্রী খুঁজে নেবে।

ক্যাপসুলগুলো ৮ ফুট ৫ ইঞ্চি লম্বা, ১৬ ফুট চওড়া ও ৪ ফুট ৫ ইঞ্চি উঁচু হবে। আর ড্রোনের মতো মডিউলটা ১৪ ফুট ৪ ইঞ্চি লম্বা, ২ ফুট ৮ ইঞ্চি উঁচু ও ১৬ ফুট ৪ ইঞ্চি চওড়া হবে। এর প্রপেলারগুলোর দৈর্ঘ্য হবে ৫ ফুট ৮ ইঞ্চি।

এই পপ ডট আপ বাহনের ধারণা প্রথমে এয়ারবাস কোম্পানি দেয়। এরপর জার্মান কোম্পানি অডি পুরোপুরি ইলেকট্রিক, স্বয়ংক্রিয় ট্যাক্সি ড্রোনের ধারণা নিয়ে আসে।

অডি কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তাদের এই প্রকল্প ভবিষ্যতে ইন্ডাস্ট্রিতে পরিণত হবে। আর ট্যাক্সি ড্রোনগুলো ২০২৪ সাল থেকে ২০২৭ সালের মধ্যে বাজারে নিয়ে আসা সম্ভব। বর্তমানে বিশ্বের মেগাসিটিগুলোতে যানজট নিরসনের বিষয়টা যখন খুব জরুরি, তখন ইতালিয়ান ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি ইটালোডিজাইনের সাথে একজোট হয়ে সময়োপযোগী এই ট্যাক্সি ড্রোন তৈরি করতে যাচ্ছে অডি। পরিবেশ বান্ধব পপ ডট আপ নামের এই ট্যাক্সি ড্রোনগুলো ভবিষ্যতে মানুষের শহুরে জীবনকে আরো সহজ করে তুলবে।

সূত্র: ডেইলি মেইল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

18 + four =