দ্বিতীয়বারের মতো প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলেন জিনপিং

ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টির অনুগত পার্লামেন্টের ভোটে দ্বিতীয় মেয়াদে চীনের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন শি জিনপিং। শনিবার এ ভোট অনুষ্ঠিত হয়েছে।

পার্লামেন্টে ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচন করা হয়েছে জিনপিংয়ের ঘনিষ্ঠ মিত্র ওয়াং কিশানকে। সরকারের ভেতরে জিনপিংয়ের দুর্নীতি বিরোধী অভিযানের সময় পাশে ছিলেন তিনি।

এর আগে গত ১১ মার্চ জিনপিংকে আজীবন ক্ষমতায় রাখতে সংবিধান সংশোধন করে সর্বোচ্চ দুই মেয়াদ প্রেসিডেন্ট থাকার বিধান তুলে দেয় ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেস।

শনিবার পার্লামেন্টের ২ হাজার ৯৭০টি ভোট পেয়ে প্রেসিডেন্ট ও সেন্ট্রাল মিলিটারি কমিশনের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন শি। ২০১৩ সালে অবশ্য ২ হাজার ৯৫২টি ভোট পেয়েছিলেন তিনি। ওই সময় তার বিরুদ্ধে ভোট পড়েছিল মাত্র একটি আর অনুপস্থিত ছিল তিনজন।

সংশোধিত সংবিধান অনুযায়ী, শনিবার শি ও ওয়াং একসঙ্গে প্রথমবারের মতো শপথ নেন। শি তার বাম হাত লাল কাপড়ে ঢাকা সংবিধানের ওপর হাত রাখেন এবং তার ডান হাত তুলে শপথবাক্য পাঠ করেন।

গত বছরের অক্টোবরে ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টির ‘রুলিং কাউন্সিল’ থেকে অবসর নেন ওয়াং। তবে ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেসের বার্ষিক সম্মেলনের সময় পলিটব্যুরো স্ট্যান্ডিং কমিটির সাত সদস্যের সঙ্গে একই টেবিলে ছিলেন তিনি। অবসরে গেলেও দলে তার প্রভাব যে দলে বিন্দু মাত্র কমেনি এতেই বোঝা যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

seventeen − three =