আগামী মাসের মধ্যে এমপিওভুক্তির ফয়সালা : ‍শিক্ষামন্ত্রী

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর মতামত নিয়ে আগামী মাসের মধ্যেই নতুন করে বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত (মান্থলি পেমেন্ট ওর্ডার) করার বিষয়ে ফয়সালা হবে। এখন সংখ্যা বা অন্য কিছু বলছি না। কারণ, এতে ভুল বোঝাবুঝির সৃষ্টি হবে।|

রোববার জাতীয় সংসদে আ খ ম জাকির হোসেনের সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, এমপিওভুক্তির বিষয়টি অতি আলোচিত। আমরা ২০১০ সালে ২ হাজার ৪০০ স্কুল, কলেজ, মাদরাসা এমপিওভুক্ত করেছিলাম। পরে অর্থ মন্ত্রণালয় টাকা ছাড় না দেওয়ায় এমপিওভুক্ত করতে পারিনি। দীর্ঘ দিন চেষ্টার ফলে এবার অর্থমন্ত্রী রাজি হয়েছেন। কিছু টাকা বরাদ্দও দিয়েছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে আমরা কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। ইতিমেধ্যে এমপিওভুক্ত করতে প্রজ্ঞাপন জারি হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর মতামত নিয়ে আগামী মাসের মধ্যে এ বিষয়ে ফয়সালা করা হবে।

সংসদ সদস্য লুৎফা তাহেরের প্রশ্নের জবাবে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, সরকার প্রশ্নপত্রের গোপনীয়তা নিশ্চিত করতে সব বোর্ডের সমন্বিত উদ্যোগে প্রশ্ন ব্যাংক করার পরিকল্পনা গ্রহণ করছে। বর্তমানে প্রশ্ন ব্যাংকের জন্য সফটওয়ার তৈরির কাজ চলছে

সফটওয়ারটি তৈরি হলে বাংলাদেশ পরীক্ষা মূল্যায়ন ইউনিট থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত শিক্ষকরা অনলাইনে তৈরিকৃত প্রশ্নপত্র প্রশ্ন ব্যাংকে পাঠাবেন। তাদের পাঠানো প্রশ্ন থেকে সুপার মডারেটর কর্তৃক মডারেশন হয়ে পরীক্ষার জন্য চূড়ান্ত প্রশ্নপত্র তৈরি হবে। এর ফলে পাবলিক পরীক্ষাগুলোর প্রশ্নপত্রের গোপনীয়তা নিশ্চিত করা সম্ভব হবে।

আবুল কালাম আজাদের এক প্রশ্নের জবাবে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, সরকার শিক্ষার্থীদের শিক্ষামুখী করতে ২০০৯-২০১৮ অর্থবছর পর্যন্ত মোট ২ কোটি ৮৯ লাখ ৮ হাজার ৯২১ জন শিক্ষার্থীকে ৫ হাজার ৩১৩ কোটি ৩০ লাখ ৯১ হাজার টাকা উপবৃত্তি দিয়েছে। উপবৃত্তির টাকা মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে দেওয়া হয়েছে। এছাড়া, মেধা ও সাধারণ বৃত্তির আওতায় প্রাথমিক, ইবতেদায়ী, জেএসসি, জেডিসি, এসএসসি, এইচএসসি, ফাজিল, স্নাতক (সম্মান/পাস), স্নাতকোত্তর শিক্ষার্থীদের ফলাফলের ভিত্তিতে ২০০৯-১০ থেকে ২০১৬-১৭ অর্থবছর পর্যন্ত মোট ১৪ লাখ ৮৮ হাজার ৪০১ জন শিক্ষার্থীকে ১ হাজার ২০৩ কোটি ৮১ লাখ ১৩ হাজার ৫০০ টাকা দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twelve + 1 =